Skip to content

২০২০ গুগল এডসেন্সের নতুন কিছু আপডেট

গুগল এডসেন্সে যোগ হয়েছে নতুন কিছু আপডেট। নতুন এ আপডেটগুলো কিছু মানুষের জন্য সুফল নিয়ে আসলেও বেশিরভাগ মানুষের জন্য তা চোখে পানি নিয়ে আসবে। নতুন এ আপডেটে কি কি আছে পাবলিশারদের জন্য আসুন তা জেনে নেওয়া যাক।

সর্বশেষ ২০১৯ আপডেটঃ গুগল অ্যাডসেন্স ঘোষণা করেছে যে তারা অবৈধ/ইনভ্যালিড ক্লিকগুলি হওয়ার আগে বিজ্ঞাপন দেখানো বন্ধ করবে। গুগল বলছে যে, এই পরিবর্তনটি বেশিরভাগ পাবলিসার্সকে প্রভাবিত করবে না। ব্যানড অ্যাডসেন্স পাবলিসার্সকে অবহিত করা হবে এবং সমস্যা সমাধানের সুযোগ দেওয়া হবে।

কিভাবে এডসেন্স একাউন্ট খুলবেন এবং আয় শুরু করবেন?

গুগল এডসেন্স পলিসি আপডেট

গত ২০ মে থেকে ৩০ মে, ২০১৮ পর্যন্ত গুগল তাদের এডসেন্স পলিসিতে বেশ কিছু বড় পরিবর্তন আনে। এ পরিবর্তনগুলোর ফলে বেশ কিছু পাবলিশারদের অবস্থা খুবই খারাপ হবে। এক কথায় বলতে গেলে এডসেন্স পলিসিতে ৩টি বড়সড় পরিবর্তন আনা হয়েছে। এ পরিবর্তনগুলোর সুবিধা ও অসুবিধা দুটোই রয়েছে। এর আগে আসুন জানা যাক যে পলিসিতে কি কি পরিবর্তন আনা হয়েছে।

এডসেন্স

উল্লেখ্য যে, ২০১৮-র শুরুর দিকেই গুগল তাদের ইউটিউব মোনেটাইজেশন পলিসিতে অনেক বড় পরিবর্তন আনে। ইউটিউব পলিসিতে পরিবর্তন আনার কয়েক মাস যেতে না যেতেই গুগল তাদের এডসেন্স পলিসিতে নতুন আপডেট এনেছে।

ইউটিউব মোনেটাইজেশন পলিসির আপডেট সম্পর্কে না জেনে থাকলে নিচের লিংক থেকে তা পড়ে নিন।

এডসেন্স পলিসিতে আনা পরিবর্তনসমূহ

  1. প্রথমত যে পলিসিতে আপডেট আনা হয়েছে তা খুবই গুরুত্বপূর্ণ। এ আপডেটটিতে একজন ব্যক্তি শুধুমাত্র একটি এডসেন্স একাউন্ট ব্যবহার করতে পারবেন না। অবশ্য এ নিয়মটি আগেও ছিল। কিন্তু একই নামে একাধিক ব্যক্তি থাকা এবং একই ব্যক্তির একাধিক ফোন নম্বর ব্যবহার করে এডসেন্স একাউন্ট খোলার কারণে এ নিয়মটির প্রয়োগ সম্পূর্ণরূপে সম্ভব হয় নি।
  2. পরিবর্তন আনা হয়েছে একাউন্ট ভেরিফাই করার ক্ষেত্রেও। আগে এডসেন্সে ১০$ জমা হওয়ার পর গুগল থেকে একটি পিন মেইল করা হত। এ পিনটি গুগলের কাছে সাবমিট করার মাধ্যমে পাবলিশাররা তাদের এডসেন্স একাউন্ট ভেরিফাই করতেন। এখনও এ পদ্ধতিতে ভেরিফিকেশন করা হবে। তবে পিন ভেরিফাই করার পর আরও একটি ভেরিফিকেশন করতে হবে। এ জন্য আপনাকে আপনার NID Card কিংবা Passport এর স্ক্যান কপি এর মাধ্যমে আপনার একাউন্ট ভেরিফাই করতে হবে। এর কারণ হল যাতে একজন ব্যক্তি শুধুমাত্র একটি এডসেন্স একাউন্ট ব্যবহার করতে পারে। তাই এডসেন্স একাউন্ট খোলার সময় খেয়াল রাখবেন যাতে একাউন্টের নাম আর NID Card কিংবা Passport এর নাম যেনো হুবহু মিল থাকে। নাম মিল না থাকলে আপনার একাউন্ট ভেরিফাই হবে না। নতুন পাবলিশার যাদের একাউন্ট এখনো ভেরিফাই হয় নি তাদের জন্য আইডি কার্ড/পাসপোর্ট এর মাধ্যমে ভেরিফিকেশন করাটা বাধ্যতামূলক হলেও পুরাতন পাবলিশার যাদের একাউন্ট ইতিমধ্যে ভেরিফাই হয়েছে তাদের ক্ষেত্রে নতুন নিয়মে ভেরিফিকেশন করা বাধ্যতামূলক কি না তা সম্পর্কে এখনো কিছু জানা যায় নি।
  3. এছাড়া আগে একাউন্ট ভেরিফাই করার পর কোনো কারণে একাউন্ট Disable/Suspend হলে একাউন্টে যে পরিমাণ অর্থ জমা হত সেটা ১০$ হোক কিংবা ৫০$ একাউন্টধারির ব্যাংক একাউন্টে পাঠিয়ে দেওয়া হত। কিন্তু নতুন আপডেটে এ সুবিধা বন্ধ করে দেয়া হয়েছে। অর্থাৎ আপনার এডসেন্স একাউন্ট Disable/Suspend হওয়ার পর আপনার একাউন্টে জমা থাকা অর্থ সেটা কয়েক হাজার ডলার হলেও আপনার ব্যাংক একাউন্টে পাঠানো হবে না। গুগল এ অর্থ কেটে রেখে দিবে।

আরো পড়ুনঃ ইউটিউব চ্যানেল খুলে কিভাবে আয় করবেন?

নতুন আপডেটের সুবিধাসমূহ

নতুন এ আপডেটের ফলে Original Content Creator দের অনেক সুবিধা হবে। প্রথমত, আগে যে হারে এডসেন্স একাউন্ট সাসপেন্ড/ডিজেবল করা হত তা এখন অনেকটা কমে যাবে। তাছাড়া আগে একই ব্যক্তি বেশ কয়েকটি এডসেন্স একাউন্ট খুলে Spamming করে অনেক টাকা আয় করত। যার ফলে CPC এর পরিমাণ কমে গিয়ে Original Content Creator সমস্যা হত যা এখন আর হবে না।

নতুন আপডেটের অসুবিধাসমূহ

এডসেন্স পলিসিতে নতুন এ আপডেটে শুধুমাত্র তাদেরই সমস্যা হবে যারা স্প্যামিং করে আয় করত। যারা Original Content তৈরি করেন তাদের প্রথম কয়েকদিন একটু ঝামেলা মনে হলেও প্রকৃতপক্ষে কোনো সমস্যায় পড়তে হবে না। শুধু খেয়াল রাখবেন যাতে আপনার এডসেন্স একাউন্টের নাম আর NID Card কিংবা Passport এর নাম যেনো হুবহু মিল থাকে।

আপনার যেকোনো প্রশ্ন ও মতামত আমাদের কমেন্টের মাধ্যমে জানাবেন।

আরও দেখুন

8 Comments

  1. অসাধারণ লিখেছেন ভাই আপনাকে অসংখ্য ধন্যবাদ অনেক কিছু শিখেছি আশা করি আরো ভালো কিছু শিখতে পারবো

  2. ধন্যবাদ। ভাল কিছু শেয়ার করার জন্য। এডসেন্স ধারী দের জন্য খুবই উপকারি পোস্ট।

  3. ওয়েবসাইটে এডসেন্স একাউন্ট আক্টিভ হওয়ার জন্য মিনিমাম কত ভিউ এবং কত পোষ্ট থাকা লাগবে।
    এ বেপারে জানালে খুশি হবো।

    • এক্টিভ হওয়ার জন্য নির্দিষ্ট করে আসলে ঠিক বলা যাবে না, কত ভিউ বা পোষ্ট থাকা লাগবে। তবে এডসেন্সে আবেদন করার আগে অবশ্যই সাইটে ২০-৩০ টি ফ্রেস কনটেন্ট থাকা উচিত বলে আমি মনে করি।

  4. আজ প্রায় ১০ দিন হলো এডসেন্স পেয়েছি কিন্তু আমার ওয়েব সাইটে এপ্রুভ দিচ্ছে না। কি করবো একটু জদি জানাতেন অথবা আর একটা নতুন আটির্কেল লিখতেন ২০১৯ এর আপডেট নিয়ে।

    ধন্যবাদ

  5. ভাই, আমি যখন গুগল এডসেন্সে এপ্লাই করি, তখন আমার এনআইডি কার্ড ছিল না। তাই, আমার মায়ের এনআইডি কার্ড দিয়ে একাউন্ট খুলি। এখন কি করবো ভাই?

    অলরেডি আমার গুগল এডসেন্স এপ্রোভ হয়ে গেছে। এখন আয় করতেছি।

  6. আপনি বললেন কয়েক হাজার ডলার হলেও তা একাউন্টে পাঠানো হবে না। গুগল কেটে রাখবে। তার মানে কি? টাকা পাওয়া যাবে না?

  7. আমি আমার ব্লগে এডসেন্স পেয়েছি তবে কিছু লেখা আগে ফেবু থেকে প্রকাশ হওয়া আর সেটা আমাদের ব্লগের নামেই ফেসবুক গ্রুপ থেকে।


Add a Comment

আপনার ই-মেইল এ্যাড্রেস প্রকাশিত হবে না।

সামাজিক মাধ্যমে আমরা

বিজ্ঞাপন