থ্রিডি টাচ ফিচার সরালো অ্যাপল

 নতুন আইফোন থেকে থ্রিডি টাচের সুবিধা সরিয়েছে অ্যাপল।এর বদলে আইফোন ১১ ও আইফোন ১১ প্রোতে যুক্ত করেছে হ্যাপটিক টাচ ফিচার।

এ বিষয়ে অ্যাপলের ওয়েবসাইটে বলা হয়েছে, হ্যাপটিক টাচ ফিচারের মাধ্যমে ক্যামেরা চালু না করেই দ্রুত গতিতে সেলফি তোলা যাবে।

হ্যাপটিক টাচ ও থ্রিডি টাচের মধ্যে বিশেষ কোনো পার্থক্য নেই। তবে থ্রিডি টাচের সব কাজ হ্যাপটিপ টাচ দিয়ে করা সম্ভব না।

দীর্ঘ সময় ধরে স্ক্রিনে প্রেস করে বিভিন্ন কাজ শর্টকাটে সারার ফিচার হলো হ্যাপটিক টাচ। ফিচারটি ব্যবহারের সময় ফোনে হালকা ভাইব্রেশন হয়।

অন্যদিকে, থ্রিডি টাচ ফিচার ব্যবহারের সময় স্ক্রিনে একটু বেশি চাপ দিতে হয়। সর্বপ্রথম ২০১৫ সালে আইফোন ৬এস ও ৬এস প্লাসে যুক্ত হয় থ্রিডি টাচ।

থার্ড পার্টি ডেভেলপাররা ফিচারটি ব্যবহারে আগ্রহী ছিলেন না। তাই অনেক অ্যাপই থ্রিডি টাচ ফিচারটি সাপোর্ট করে না।

এ কারণে কোন অ্যাপে ফিচারটি কাজ করবে আর কোন অ্যাপে করবে না তা নিয়ে আইফোন ব্যবহারকারীরাও বেশ দ্বিধায় থাকতেন। তাই ফিচারটি পুরোপুরিভাবে তারা এড়িয়ে চলতেন।

গত বছর আইফোন ১০ আর থেকে থ্রিডি টাচ সুবিধা সরিয়ে নেয় অ্যাপল। তখন থেকেই গুঞ্জন ছিলো ফিচারটি চিরতরে সরিয়ে ফেলবে তারা।

মন্তব্য করুন

আপনার ই-মেইল এ্যাড্রেস প্রকাশিত হবে না। * চিহ্নিত বিষয়গুলো আবশ্যক।